সকল নারীর প্রতিনিধি ‘সাবরিনা’

সকল নারীর প্রতিনিধি ‘সাবরিনা’

বিনোদন ডেস্কঃ এ সমাজে নারী যে পেশায় থাকুক না কেনো তাদের কিছু কমন গল্প রয়েছে। আর তা হচ্ছে নানাভাবে নিগৃহীত হওয়া, না পাওয়ার গল্প। এসকল নারীদের গল্প নিয়ে আশফাক নিপুণ বানিয়েছেন ‘সাবরিনা’। যাকে তিনি বলছেন সকল নারীর প্রতিনিধি।

নিপুণ বলছেন তার নতুন ওয়েব সিরিজটি সম্ভাবনার গল্প বলবে। যেখানে নারীদের গল্প বলা হলেও একে তিনি নারীকেন্দ্রিক সিরিজ বলতে নারাজ। সিরিজটি নিয়ে জানান দিতে মঙ্গলবার (৮ মার্চ) দুপুরে কারওয়ান বাজারের এক অডিটোরিয়ামে আয়োজিত অনুষ্ঠানে কথা বলেন ‘সাবরিনা’ নিয়ে।

‘সাবরিনা’-র প্রধান চরিত্রে অভিনয় করেছেন মেহজাবীন, অর্ষা, রুনা খান, ইন্তেখাব দিনার ও হাসান মাসুদ। নারী দিবস উপলক্ষ্যে সিরিজটির টিজার উন্মোচন করা হয় অনুষ্ঠানে।

‘সাবরিনা’ নির্মাণের সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জটা কী ছিলো? এমন প্রশ্নে নিপুণ জানান, সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ ছিলো তার নিজের সাবরিনা হয়ে উঠা। তিনি বলেন, আমি যদি সাবরিনা না হই, তাহলে গল্পটা বলতে পারবো না। শারীরিকভাবে না পারলেও কোনো না কোনভাবে সাবরিনা হতে হয়েছে।

সিরিজটি প্রযোজনা করছে হইচই বাংলাদেশ। এটি নিপুণের সঙ্গে তাদের তৃতীয় কাজ। নিপুণের পরিচালনায় ‘মহানগর’ সিরিজটি বেশ জনপ্রিয়তা পেয়েছিলো। তাই তার পক্ষে খুব সহজ ছিলো ‘মহানগর ২’ বানানোর। কিন্তু তিনি সে পথে না হেঁটে বানিয়েছেন নারীপ্রধান একটি গল্প।

তার কাছে প্রশ্ন ছিলো, আমাদের দেশে নারীদের নিয়ে বানানো সিরিজ বা কাজগুলো সাধারণত দর্শকপ্রিয়তা পায় না, ‘সাবরিনা’-র ক্ষেত্রে তেমনটা ঘটার সম্ভাবনা রয়েছে কিনা?

‘আসলে চেনা পথে হাঁটা সহজ। কাউকে না কাউকে তো শুরু করতে হয়। আমি না হয় শুরু করলাম। আর এমনও তো হতে পারে সিরিজটি দর্শকদের ভালো লেগেও যেতে পারে’,-বলেন নিপুণ।

মেহজাবীন ও অর্ষা দুজনেকেই ‘সাবরিনা’ রূপে দেখা যাবে। টিজারে যতটুকু দেখা গিয়েছে তাতে মেহজাবীনকে একজন ডাক্তার এবং অর্ষাকে গৃহবধূর চরিত্রে দেখা যাবে। এ সিরিজটির মাধ্যমে আশফাক নিপুণের সঙ্গে মেহজাবীনের ৩ বছর পর কাজ হচ্ছে।

‘সাবরিনা’ নিয়ে মেহজাবীন বলেন, এটি আমার প্রথম ওয়েব সিরিজ। আমার ইচ্ছে আপনারা এটি নিজের মত করে উপভোগ করুন। সাবরিনার গল্পটা আমার অনেক পছন্দের এবং চ্যালেঞ্জিং। আমি সবসময় চাই এমন চরিত্র পেতে, এমন কাজ পেতে যা পেলে আমি নিজেই নার্ভাস হয়ে যাবো তা করতে পারবো কিনা। আমাকে দিয়ে সম্ভব হবে কিনা। আমাকে যখন এর গল্পটা বলা হলো, তখন ফিলটা একটু একটু করে পাচ্ছিলাম। আমি বুঝার চেষ্টা করছিলাম সাবরিনাকে। আমাদের সমাজে সাবরিনা তো একা একজন না। প্রায় সকল নারীই ‘সাবরিনা’।

আশফাক নিপুণের সঙ্গে রুনা খান এর আগে ‘কষ্টনীড়’ নামে একটি সিরিজ করেছেন। সেটির রিজু বা রিজওয়ানা চরিত্রটি তার জীবনের অন্যতম সেরা চরিত্র বলে উল্লেখ করেন রুনা। ‘সাবরিনা’-য় তার অভিনীত চরিত্রের নাম বেবি। তিনি বলেন, নারীরা যে জায়গায় থাকি না কেন, সামাজিকভাবে। কোনো না কোনভাবে একটা জায়গায় গিয়ে এক। সবাইকে নানাভাবে সংগ্রাম করে চলতে হয়। একটা জায়গায় গিয়ে সব মেয়েই সাবরিনা।

একটু ভিন্নভাবে সিরিজটি নিয়ে বললেন অর্ষা। ‘আমরা যখন শুটিং করছিলাম, তখন দেখেছিলাম নিপুণ আমাদের প্রত্যেককেই চরিত্রের গেটআপে ভালো করে পর্যবেক্ষণ করছে। আর ওই মুহূর্তেই দৃশ্য তৈরি করছে, সংলাপ লিখছে। যা একদমই মেদহীন। দর্শকরাও নিশ্চয় তা পছন্দ করবেন।

‘সাবরিনা’ মার্চ মাসেই মুক্তি পাবে বলে জানিয়েছে হইচই বাংলাদেশ। আগামী সপ্তাহে ট্রেলার রিলিজে জানা যাবে মুক্তির তারিখ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here